গুগলের নিজস্ব ফোন পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল অবমুক্ত
গুগলের নিজস্ব ফোন পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল অবমুক্ত
যদি কোন স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর এরই মধ্যে নেক্সাস ব্র্যান্ডের প্রতি কোন দূর্বলতা সৃষ্টি হয়ে থাকে তবে এখন সময় এসেছে তা থেকে বেরিয়ে আসার। অবশ্য এটা কোন দুঃসংবাদ নয়। কারণ গুগল এবার আনতে যাচ্ছে নতুন ব্র্যান্ড পিক্সেল। এই পিক্সেল হলো গুগল ও এইচটিসি’র যৌথ উদ্যোগের ফলাফল যাদের হাত ধরে প্রথম অ্যানড্রয়েড ফোন ও নেক্সাসের উদ্ভব হয়েছিল।

গুগলের নিজস্ব ফোন পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল অবমুক্ত
গুগলের নিজস্ব ফোন পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল অবমুক্ত


পিক্সেলের নতুন দুটি ফোন হবে- ৫ ইঞ্চি আকারের পিক্সেল ও সাড়ে ৫ ইঞ্চির পিক্সেল এক্সএল। দুটো ফোনেই থাকবে অ্যামোলেড স্ক্রিন, যার ছোটটিতে থাকবে ১০৮০ পিক্সেল ডিসপ্লে আর বড়টিতে কিউএইচডি। ছোট ও বড় ফোনটিতে দেয়া হবে যথাক্রমে ২৭৭০ এবং ৩৪৫০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারআওয়ার ব্যাটারি।

তবে পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল এর মধ্যকার পার্থক্যের চেয়ে মিলই বেশি। কারণ দুটোতেই থাকছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮২১ চিপসেট, ৪জিবি র‌্যাম, ৩২/১২৮জিবি সংরক্ষণ ক্ষমতা। ক্যামেরাতে থাকছে ১২ মেগাপিক্সেল সেন্সর সাথে ইলেক্ট্রনিক ইমেজ স্ট্যাবিলাইজেশন।

যদিও এইচটিসি ফোন দুটি তৈরি করছে তবে তাতে দেয়া হবে শুধু গুগলের লোগো। এ থেকে মনে হয় গুগল নিজেদের ব্র্যান্ড নামটাকে ভালো ভাবে পোক্ত করতে চাইছে। এ ফোন দিয়ে গুগল রাউটার এর সাথে সংযোগ স্থাপন এবং গুগল মিডিয়া প্লেয়ার ব্যবহার করা যাবে। কালো, রুপালি ও নীল রঙে পাওয়া যাবে এই ফোন দুটি।

ভিন্ন ভিন্ন সুবিধাসহ পিক্সেল ফোন দুটির ভিন্ন ভিন্ন মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে যা শুরু হবে ৬৪৯ ডলার থেকে। ইউকে তে পিক্সেল ৩২জিবি/১২৮ জিবি এর মূল্য ৫৯৯/৬৯৯ পাউন্ড এবং পিক্সেল এক্সএল ৩২/১২৮ জিবি এর মূল্য হবে ৭১৯/৮১৯ পাউন্ড। আমেরিকা, ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা এবং জার্মানীতে ফোনগুলির প্রি-অর্ডার নেয়া শুরু হয়েছে। আর ইন্ডিয়ায় ১৩ অক্টোবর থেকে অর্ডার নেয়া শুরু হবে। ২০ অক্টোবর থেকে আগ্রহী ক্রেতাগণ ফোনটি বাজার থেকে কিনতে পারবেন।